Home / বিনোদন / প্রবল চাহিদায় করনের বাথরুমের মধ্যেও করেছিলেন সারা

প্রবল চাহিদায় করনের বাথরুমের মধ্যেও করেছিলেন সারা

সারা আলী খান। বর্তমান সময়ে বলিউডের অন্যতম জনপ্রিয় অভিনেত্রীদের একজন তিনি। এই অভিনেত্রীর পরবর্তী সিনেমা ‘আতরাঙ্গি রে’। এতে তার সঙ্গে আরো আছেন তামিল সিনেমার জনপ্রিয় অভিনেতা ধানুশ ও বলিউডের ‘খিলাড়ি’ অক্ষয় কুমার।

সিনেমাটির প্রচারের জন্য নির্মাতা করন জোহরের ‘কফি শটস’ চ্যাট শোয়ে হাজির হয়েছিলেন সারা। তার সঙ্গে ছিলেন ধানুশ। করনের এই অনুষ্ঠানে ‘আতরাঙ্গি রে’ সিনেমার বহুল আলোচিত ‘চাকা চাক’ গান নিয়ে কথা বলেন করন। সেই সময় সারা জানান, করনের বাথরুমে এই গানটির নাচের অনুশীলন করেন তিনি।

করন বলেন, ‘যখন গানটি প্রথম শুনি তখন আমি ও সারা গোয়াতে ছিলাম। গানের অনুশীলনের জন্য সারা আমার রুমে আসতেন। তার সঙ্গে ড্যান্স কোরিওগ্রাফার এবং সহযোগীরাও থাকতো। এটাই কী সেই গান? গান প্রকাশের পর আমি বলেছিলাম, হায় ঈশ্বর, এই গানের জন্যই সে প্রতিদিন যত্ন করে অনুশীলন করতো।

এর পরিপ্রেক্ষিতে সারা আলী খান বলেন, ‘আপনার বাথরুমে অনুশীলন করতাম। তখন বলতে পারিনি, এখন বলছি। আপনার রুমের আয়নাটা ছোট ছিল, কিন্তু বাথরুমেরটা অনেক বড়। তাই সেখানেই অনুশীলন করতাম।’

‘আতরাঙ্গি রে’ সিনেমায় সারার নাম রিঙ্কু সূর্যবংশী। পরিবারের চাপে পড়ে বিষ্ণুকে (ধানুশ) বিয়ে করে। কিন্তু বিয়েতে তাদের দু’জনেরই মত নেই। কারণ রিঙ্কু ভালোবাসে সাজাদকে (অক্ষয়)। এমনকি প্রেমিকের জন্য সে ২১ বার বাড়ি ছেড়ে পালিয়েছে। কিন্তু প্রতিবারই পরিবারের হাতে ধরা পড়ে।

এদিকে বিয়ের পর বিষ্ণু ও রিঙ্কু ঠিক করে দিল্লিতে পৌঁছে নিজেদের পছন্দ মতো করে জীবন বেছে নেবে। কিন্তু কাহিনি মোড় নেয় ভিন্ন দিকে। কারণ রিঙ্কু পুরোনো প্রেমিককে ভুলতেও পারছে না, আবার বরকে ডিভোর্সও দিতে পারছে না।

এমন গল্প নিয়ে এগিয়েছে সিনেমাটির কাহিনি। ‘আতরাঙ্গি রে’ সিনেমাটি পরিচালনা করেছেন আনন্দ এল রাই। ২৪ ডিসেম্বর ডিজনি প্লাস হটস্টারে সিনেমাটির মুক্তি পাবে।

Check Also

নায়ক মান্না স্মরণে গান লিখলেন স্ত্রী শেলী মান্না

ঢাকাই চলচ্চিত্রের জনপ্রিয় চিত্রনায়ক মান্না। অসংখ্য ভক্তকে শোকের সাগরে ভাসিয়ে ২০০৮ সালের ১৭ ফেব্রুয়ারি না-ফেরার …